• শিরোনাম

    ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কে যানজটে দুর্ভোগ

    অনলাইন ডেস্ক | শুক্রবার, ২৪ মার্চ ২০১৭

    ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কে যানজটে দুর্ভোগ

    তিন দিনের ছুটির কারণে যানবাহনের অতিরিক্ত চাপে ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কে গতকাল বৃহস্পতিবার রাত থেকে আজ শুক্রবার সকাল পর্যন্ত তীব্র যানজট সৃস্টি হয়েছে। এতে যাত্রীদের সীমাহীন দুর্ভোগ পোহাতে হয়।

    পুলিশ ও যানবাহনের ভুক্তভোগী চালকেরা জানান, শুক্র ও শনিবার সাপ্তাহিক ছুটি ছাড়াও রোববার স্বাধীনতা দিবসের ছুটি রয়েছে। এই তিন দিনের ছুটিতে ঘরমুখো মানুষের চাপ বেড়ে যায়। গতকাল বৃহস্পতিবার বিকেল থেকেই যাত্রীদের বাসের ছাদে উঠে যাতায়াত করতে দেখা যায়। সন্ধ্যার পর থেকে যানবাহনের চাপ অতিরিক্ত বেড়ে যায়। রাত সাড়ে ১১টার দিকে মহাসড়কে মির্জাপুরের পাকুল্যা, কদিম ধল্যা, শুভুল্যা, কুর্ণী, মির্জাপুর, ধেরুয়া ও গোড়াই এলাকায় থেমে থেমে যানজটের সৃষ্টি হয়। একপর্যায়ে যানবাহনের গতি একেবারেই কমে যায়। গভীর রাতে মির্জাপুরের পাকুল্যা এলাকায় একটি ট্রাক বিকল হয়। এতে গাজীপুরের চন্দ্রা থেকে টাঙ্গাইলের এলেঙ্গা পর্যন্ত প্রায় ৫৫ কিলোমিটার এলাকাজুড়ে যানজট দেখা দেয়।

    মির্জাপুরের ব্র্যাক ব্যাংকের রেমিট্যান্স শাখার কর্মকর্তা আবদুর রহমান জানান, গতকাল সন্ধ্যায় জামালপুরে যেতে তিনি বাসস্ট্যান্ডে যান। কিন্তু রাত সাড়ে ১০টা পর্যন্ত থেকেও বাস পাননি। আজ শুক্রবার ভোরে আবার বাসস্ট্যান্ডে যান। যানজটের কারণে সকাল সাড়ে আটটার দিকে বাসে ওঠেন।

    ঢাকাগামী হানিফ এন্টারপ্রাইজের যাত্রী আরিফুল ইসলাম জানান, মহাসড়কের করটিয়াতে ভোর রাতে যানজটে পড়েন তাঁরা। সকাল সাড়ে সাতটার দিকে তাঁরা মির্জাপুরের দেওহাটা পার হন।

    মির্জাপুর থানার উপপরিদর্শক (এস আই) মোশারফ হোসেন জানান, তিন দিনের ছুটির কারণে ঢাকায় চলাচলকারী কিছু যানবাহন এই মহাসড়কে যাত্রী পরিবহনের জন্য এসেছে। এতে যানবাহনের চাপ বৃদ্ধির ফলে যানজটের সৃষ্টি হয়। তা ছাড়া মহাসড়কের পাকুল্যাতে ট্রাক বিকল হওয়াতে যানজট বেড়ে গেছে। আজ ভোরে ট্রাকটি সরিয়ে নিলে যানবাহন চলতে শুরু করে। বেলা ১১টার দিকে মহাসড়কে মির্জাপুর উপজেলার গোড়াই থেকে চন্দ্রা পর্যন্ত থেমে থেমে যানজট ছিল। দুপুর ১২টার পরে যানজট অনেকটা কমে আসে।

    Comments

    comments

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    ২০ টাকার জন্য খুন!

    ২০ মার্চ ২০১৭