• শিরোনাম

    জঙ্গিবাদ-সন্ত্রাস নিয়ন্ত্রণে : স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী

    যশোর প্রতিনিধি: | সোমবার, ২০ মার্চ ২০১৭

    জঙ্গিবাদ-সন্ত্রাস নিয়ন্ত্রণে : স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী

    স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল বলেছেন, জঙ্গিবাদ মাদক আর সন্ত্রাস নিয়ন্ত্রণে। তবে নির্মূল করা যাচ্ছে না। ষড়যন্ত্র হলে সন্ত্রাস, জঙ্গিবাদ, মাদক নির্মূল করা কঠিন। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে সকল ষড়যন্ত্র প্রতিহত করা যাবে যদি সাধারণ মানুষ আর আইন শৃঙ্খলা বাহিনী এক হয়ে কাজ করে।
    বৃহস্পতিবার বিকেলে যশোর জিলা স্কুল মাঠে জেলা পুলিশের উদ্যোগে সন্ত্রাসী, মাদক এবং জঙ্গিবাদ বিরোধী মহাসমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি এ কথা বলেন।
    তিনি আরো বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশ এখন অনেক এগিয়ে গেছে। ডিজিটাল বাংলাদেশ তৈরির স্বপ্ন পূরন হয়েছে। খাদ্যে স্বয়ং সম্পূর্ণতা অর্জন করেছি। সফল ভাবে জঙ্গিবাদ মোকাবেলা হয়েছে। দেশের তিন কোটি মানুষ এখন অল্প খরচে ইন্টারনেট ব্যবহার করে থাকে। দারিদ্রকে যাদুঘরে পাঠানোর ব্যবস্থা করা হচ্ছে। শিক্ষা, স্বাস্থ্য, প্রযুক্তিতে বাংলাদেশ এখন বিশ্বের মডেল। ২৮টি আন্তর্জাতিক পুরস্কারে ভূষিত হয়েছে প্রধানমন্ত্রী। নারীর ক্ষমতায়নের প্রবৃদ্ধি ঘটেছে। সমুদ্রে নতুন বাংলাদেশ তৈরি হয়েছে। সিটমহলের সমস্যা সমাধান করে ৬৬ বছরের যন্ত্রণার অবসান ঘটেছে এই আওয়ামী লীগ সরকারের আমলে। যার নেতৃত্বে আছেন বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনা। তার বিকল্প নেই। সুতরাং বাংলাদেশকে উন্নত দেশের সারিতে নিয়ে যেতে হলে তাকে আবারো জয়ী করতে হবে। নৌকা মার্কায় ভোট দিতেই হবে।
    সমাবেশে তিনি বক্তব্য দেয়ার আগে হ্যালো যশোর পুলিশ অ্যাপস, পৌরসভার উদ্যোগে যশোর শহরে সিসি ক্যামেরা স্থাপনের উদ্বোধন করেন। এছাড়া পৌরসভার ১৫ জন মুক্তিযোদ্ধার কর মওকুফ ও পৌরট্যাক্স বাতিলের সার্টিফিকেট প্রদান করেন। সভায় তার কাছে জেলার ৮৬৬ জন মাদক ব্যবসায়ী আর মাদক বিক্রি না করার অঙ্গীকার করে আত্মসমার্পণ করে। মাদক ব্যবসায়ীদের ৩শ’ টাকার নন জুডিসিয়াল স্ট্যাম্পে সাক্ষর করা ছবি সম্বলিত অঙ্গিকারনামার দলিল জেলার পাবলিক প্রসিকিউটর রফিকুল ইসলাম পিটুর হাতে হস্তান্তর করা হয়। আর মুক্তিযোদ্ধাদের কর বাতিলের দলিল জেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার রাজেক আহমেদের হাতে তুলে দেয়া হয়।
    সভায় সভাপতিত্ব করেন খুলনা রেঞ্জের ডিআইজি এসএম মনিরুজ্জামান। সমাবেশে বিশেষ অতিথি হিসাবে বক্তব্য রাখেন, জনপ্রসাসন প্রতিমন্ত্রী ইসমাত আরা সাদেক, যশোর-২ (চৌগাছা-ঝিকরগাছা) অ্যাডভোকেট মনিরুল ইসলাম মনির,যশোর-৩ (সদর) আসনের সংসদ সদস্য কাজী নাবিল আহমেদ, যশোর-৫ (মণিরামপুর) আসনের সংসদ সদস্য স্বপন ভট্টাচার্য্য, জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শহিদুল ইসলাম মিলন, সাধারণ সম্পাদক ও সদর উপজেলা চেয়ারম্যান শাহীন চাকলাদার, পৌরসভার মেয়র জহিরুল ইসলাম চাকলাদার রেন্টু, প্রেসক্লাব যশোরের সভাপতি জাহিদ হাসান টুকুন প্রমুখ।
    এছাড়া সংসদ সদস্য (যশোর-৫) রনজিৎ কুমার রায়, জেলা পরিষদের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান আব্দুল খালেক, বিভিন্ন পৌরসভার মেয়র, উপজেলার চেয়ারম্যান, খুলনা বিভাগের ১০ জেলার পুলিশ সুপার, বিভিন্ন থানার ওসিসহ গণ্যমান্যরা উপস্থিত ছিলেন।
    অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন যশোরের পুলিশ সুপার আনিসুর রহমান। পরে মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক সন্ধ্যার আয়োজন করা হয়।এর আগে তাকে যশোর বিমান বন্দর থেকে ঘোড়াই চড়িয়ে তাকে সমাবেশে আনা হয়।

    Comments

    comments

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    ২০ টাকার জন্য খুন!

    ২০ মার্চ ২০১৭